সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত অভিনেত্রী আশা

সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন চলতি প্রজন্মের অভিনেত্রী আশা চৌধুরী। সোমবার দিবাগত রাতে ট্রাকের ধাক্কায় চিরতরে স্তব্ধ হলেন আশা।
রাজধানীর টেকনিক্যাল মোড়ে সড়ক দুর্ঘটনায় একটি ট্রাকের ধাক্কায় তিনি রাস্তায় ছিটকে পড়েন। তার মাথা থেঁতলে যায়। শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকেরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। জানা গেছে, গতকাল রাতে ঢাকার বোর্ড বাজার এলাকা থেকে ফিরছিলেন এই অভিনেত্রী। সেখানে তাদের নিজেদের বাসার কাজ চলছে। সেটা দেখভাল করে ফেরার কথা ছিল তাদের রূপনগর আবাসিক এলাকার বাসায়।

সেই ফেরা আর হলো না আশার।  সবশেষ ২ জানুয়ারী নির্মাতা রোমান রুনী পরিচালিত   ‘দ্য রিভেঞ্জ’-এ অভিনয় করেছেন আশা। রোমান বলেন, গতকাল রাত দেড়টার দিকে টেকনিক্যাল এলাকার সড়কে দুর্ঘটনা ঘটে। পেছন থেকে একটি ট্রাকের ধাক্কায় প্রায় ২০ ফুট দূরে গিয়ে পড়ে আশা। সঙ্গে সঙ্গে দারুস সালাম থানার পুলিশ এসে তাকে শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে নেয়। সেখানকার দায়িত্বপ্রাপ্ত চিকিৎসক তখনই জানান ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়েছে। প্রায় চার বছর আগে আশার টেলিভিশন নাটকের অভিনয়ে আসা। অভিনয়কেই সে পেশা হিসেবে বেছে নিতে চেয়েছিলেন। শিল্পী হিসেবে বিটিভির তালিকাভুক্ত হয়েছিলেন। একজন পেশাদার অভিনেত্রী হতে চেয়েছিলেন তিনি। এই অভিনেত্রী মারা যাওয়ার দুই দিন আগে ক্যারিয়ারে প্রথমবারের মতো প্রধান চরিত্রে অভিনয়ের সুযোগ পেয়েছিলেন। নাটকে তার সহশিল্পী ছিলেন সালাহউদ্দিন লাভলু এবং আনিসুর রহমান মিলন। আশা চৌধুরীরা চার বোন। সে ছিল সবার বড়। ঢাকার বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস অ্যান্ড টেকনোলোজিতে (বিইউবিটি) লতে ৭ সেমিস্টারে পড়াশোনা করতেন। তার গ্রামের বাড়ি পাবনা। তার লাশ এখন হাসপাতালের মর্গেই আছে। সেখান থেকে তাদের রূপনগরের বাসায় নিয়ে যাওয়া হবে। বাদ আসর মিরপুরে তার জানাজা হবে। পরে কালশী কবরস্থানে তার মরদেহ দাফন করা হবে।

SHARE