নালিতাবাড়ীতে নিখোঁজের দুই দিন পর পুকুর থেকে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার।

শেরপুরের নালিতাবাড়ীতে নিখোঁজ হওয়ার দুই দিনপর মো. মিজানুর রহমান (১৮) নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ,সে উপজেলার খলাভাঙ্গা এলাকার ঈসমাইল হোসেন এর ছেলে।
শুক্রবার (১৮ সেপ্টেম্বর) সকাল ১১ টার দিকে উপজেলার মরিচপুরান ইউনিয়নের খলাভাঙ্গা মকবুল হোসেন নিন্মমাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পুকুর থেকে এ মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
স্থানীয় এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়,গত বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে নয়টার দিকে নিখোঁজ মিজান ও স্থানীয় আব্দুল গফুর এর ছেল রাসেল মিয়া, ফুলমামুদ এর ছেলে জাহাঙ্গীর আলম ও আব্দুল মোতালেব এর ছেলে রাসেল চার বন্ধু মিল স্থানীয় মকবুল হোসেন উচ্চবিদ্যালয়ের বারান্দায় বসে আড্ডা দিচ্ছিল।এর পর থেকে মিজানুর রহমানকে আর খোজেঁ পাওয়া যাচ্ছিল না।পরে তার সাথে আড্ডা দেওয়া বন্ধুদের দেওয়া তথ্যমতে জানা যায় ঐ দিন মিজান বিভিন্ন পদের ঘুমের ঔষধ খেয়ে নিশা করেছিল।মরদেহ উদ্ধারে পর পুলিশ স্কুল বারান্দা থেকে ঘুমের জিসোপেন ১ মিলি গ্রামের সাতটি ট্যাবলেট এর খোসা ,টিপটিন ২৫ এমজি এর দশটি ট্যাবলেট এর খোসা ও ফেক্সোফেনাডিন ১০০ মিলির একটি খালি বোতল ও খালি এনারজি ডিংকের এর বোতল উদ্ধার করেছে।ধারণা করা হচ্ছে অতিরিক্ত ঘুমের ঔষধ খেয়ে নিশা করে পুকুরে পড়ে তার মৃত্যু হতে পারে।
নালিতাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বশির আহমেদ ঘটনার সততা নিশ্চিত করে বলেন, ধারণা করা হচ্ছে অতিরিক্ত ঘুমের ঔষধ খেয়ে নিশা করে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে গিয়ে পুকুরে পড়ে যেতে পারে, না হয় বন্ধুদের সাথে অন্য কোন ঘটনা ঘটতেও পারে, তবে মরদেহ উদ্ধারের সময় তার শরিরে কোন আঘাতে চিহৃ পাওয়া যায়নি।মরদেহ উদ্ধার করে শেরপুর জেলা হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।ময়না তদন্তের রিপোট পেলে মৃত্যুর প্রকৃত রহস্য জানা যাবে।

 

SHARE