নারী মেডিক্যাল অ্যাসিটেন্ট ইন্টার্নকে উত্যক্ত ও প্রতিবাদ করায় আরেকজনকে মারধর, ইন্টার্নদের রাস্তা অবরোধ

 

শেরপুরে জেলা হাসপাতালের এক নারী ইন্টার্ন মেডিক্যাল অ্যাসিটেন্টকে উত্যক্ত করা হয়েছে। উত্যক্তের প্রতিবাদ করায় আরেক ইন্টার্ন মেডিক্যাল অ্যাসিটেন্টকে মারধোর করেছে একদল বখাটে। এর প্রতিবাদে জেলা হাপাতালে কর্মরত ইন্টার্ন অ্যাসিটেন্টরা হাসপাতালের সামনে রাস্তা এক ঘন্টা অবরোধ করে রাখে। বুধবার দুপুরে এই ঘটনা ঘটে।

ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে আরাফাত নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।

শেরপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল্লাহ আল মামুন অ্যাসিটেন্ট ইন্টার্নদের বরাতে বলেন, সাইক মেডিক্যাল ইনস্টিটিউটের ম্যাটসের শিক্ষার্থী পপি আক্তার জেলা সদর হাসপাতালে ইন্টার্নি করছেন। শহরের নারায়নপুর এলাকার আরাফাত নামে এক যুবক তাকে দীর্ঘদিন থেকে উত্যক্ত করে আসছিলো। আজও উত্যক্ত করার সময় পপি’র আরেক ইন্টার্ন বন্ধু নাজমুল ইবনে হাফিজ প্রতিবাদ করে। এ সময় পপিকে লাঞ্ছিত করাসহ নাজমুলকে পিটিয়ে আহত করে আরাফাত ও তার সঙ্গীরা। এ ঘটনায় পপি’র সহকর্মীরা বিক্ষুব্ধ হয়ে হাসপাতালের সামনের রাস্তা অবরোধ করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায় এবং পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

ওসি আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, ঘটনার পরপরই অভিযান চালিয়ে উত্যক্তকারী আরাফাতকে আটক করা হয়েছে।