দল থেকে বাদ পড়ে জুনায়েদ কাণ্ড

বিশ্বকাপ দল থেকে বাদ পড়ায় অন্যরকম প্রতিবাদ জুনায়েদের। গত মাসে বিশ্বকাপের প্রাথমিক দল ঘোষণা করেছিল পাকিস্তান। সে দলে জায়গা পেয়েছিল পাকিস্তানি বাঁ হাতি পেসার জুনায়েদ। কিন্তু সোমবার পাকিস্তানের চূড়ান্ত ১৫ জনের তালিকা প্রকাশ করে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। সে দল থেকে বাদ পড়েন তিন ক্রিকেটার। আবিদ আলী, ফাহিম আশরাফ ও জুনায়েদ। দলে তাদের বদলে ফিরিয়ে আনা হয়েছে মোহাম্মদ আমির, ওয়াহাব রিয়াজ ও আসিফ আলীকে। দল থেকে এইভাবে বাদ পড়াটা ভালো ভাবে নিতে পারেননি জুনায়েদ। মুখে কালো টেপ লাগানো ছবি পোস্ট করে এই বাঁ হাতি পেসার লিখেন, ‘আমি কিছু বলতে চাই না। সত্যিটা সব সময় তেতো হয়।’

জুনায়েদের এই টুইটার বার্তা সামাজিক যোগাযোগম্যাধমে ভাইরাল হয়ে যায়। জুনায়েদ এর আগে দুটি বিশ্বকাপে নাম থাকলেও একটি ম্যাচ খেলতে পারেননি। ২০১১ বিশ্বকাপে পাকিস্তান দলে থাকলেও কোন ম্যাচ খেলানো হয়নি তাকে। পরে ২০১৫ বিশ্বকাপেও জুনায়েদকে দলে রাখা হয়। কিন্তু সেবার চোট পেয়ে আর কোন ম্যাচ খেলা হয় নি তার। এবার বিশ্বকাপের দলে থেকেও হঠাৎ করে দল থেকে বাদ পরলেন এই পাক পেসার।