করোনায় আরও ২২৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১১,৫৭৮

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আরও ২২৫ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ১৭ হাজার ৮৯৪ জনে। দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় নতুন করে ১১ হাজার ৫৭৮ জন শনাক্ত হয়েছেন। সরকারি হিসাবে এ পর্যন্ত মোট শনাক্ত ১১ লাখ ৩ হাজার ৯৮৯ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ২৯ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় ৮ হাজার ৮৪৫ জন এবং এখন পর্যন্ত ৯ লাখ ৩২ হাজার ৮ জন সুস্থ হয়ে উঠেছেন। আজ স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।
এতে আরও জানানো হয়, ৬৩৮টি পরীক্ষাগারে গত ২৪ ঘণ্টায়  ৩৯ হাজার ২০৪টি নমুনা সংগ্রহ এবং ৩৯ হাজার ৮০৬টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে।

এখন পর্যন্ত ৭২ লাখ ৫৫ হাজার ৩৮৭টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে।
গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ২৯ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৪ দশমিক ৪২ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৬২ শতাংশ।
এদিকে বিভাগ ভিত্তিক শনাক্তের হার বিশ্লেষণে দেখা যায়, দেশের মোট শনাক্তের ৪১ দশমিক ৯৫ শতাংশ রোগী রয়েছেন ঢাকা বিভাগে। গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকা বিভাগে মারা গেছেন ৬০ জন। শনাক্ত হয়েছেন ৪ হাজার ৮৫৮ জন। এই বিভাগে শনাক্তের হার ৩০ দশমিক ৮২ শতাংশ। ঢাকা জেলায় (মহানগরসহ) শনাক্তের হার ২৯ দশমিক ৫২ শতাংশ। মারা গেছে ৪১ জন।
ময়মনসিংহ বিভাগে মারা গেছেন ১৪ জন। শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩৬৯ জন। শনাক্তের হার ২৪ দশমিক ২৪ শতাংশ। চট্টগ্রামে মারা গেছেন ৪০ জন। এ বিভাগে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ হাজার ৮৬৩ জন। শনাক্তের হার ৩০ দশমিক ৯৮ শতাংশ। রাজশাহীতে মারা গেছেন ২০ জন। শনাক্ত হয়েছে ১ হাজার ৪১ জন। শনাক্তের  হার ২০ দশমিক ৭০ শতাংশ। রংপুর বিভাগে মারা গেছেন ১৪ জন। শনাক্তের সংখ্যা ৮২১ জন। শনাক্তের হার ২৯ দশমিক ৫১ শতাংশ। খুলনা বিভাগে মারা গেছেন ৫৪ জন। শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ১ হাজার ৩৪৫ জন। শনাক্তের হার ২৫ দশমিক ৩৪ শতাংশ। বরিশাল বিভাগে মারা গেছেন ৯ জন। শনাক্তের সংখ্যা ৬০০ জন। শনাক্তের হার ৩৯ দশমিক ৫৮ শতাংশ। একই সময়ে সিলেট বিভাগে মারা গেছেন ১৪ জন। শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৬৮১ জন। শনাক্তের হার ৩৬ দশমিক ৫৫ শতাংশ।

SHARE